নড়াইলরে ৩৯ ইউনযি়নরে মধ্যে ৩৫ ইউনযি়নে সরকারি চাল নয়িে চাল বাজ

0
388

(নড়াইল জলো) প্রতনিধিঃ নড়াইলরে চারদিকিে ঘটছে চাল চুররি ঘটনা। এতদনি এসব গোপন থাকলে ও করোনার কারণে ক্ষুর্ধাত মানুষরে কাছে চালই প্রধান ইস্যু। তাই একরে পর বরেযি়ে আসছে খাদ্য বান্ধব র্কমসূচীর নানা অনযি়মরে তথ্য। ভজিএিফ এর চাল চুররি দায়ে পরিোলী ইউপি চযে়ারম্যানরে নামে মামলা-বহষ্কিার-আটক, ত্রাণরে চাল চুররি দায়ে জয়নগর ইউপি চযে়ারম্যানরে নামে একই ব্যবস্থার মাঝে ১০ টাকার চাল নযি়ে নাজহোল প্রশাসন। জলোর ৩৯ ইউনযি়নরে মধ্যে অন্ততঃ ৩৫ ইউনযি়নে সরকারী খাদ্যবান্ধব র্কমসূচীর চালে অনযি়ম রয়ছে। সদররে হবখালি ইউনযি়নে এসব ছাপযি়ে অভযিোগ উঠছেে ইউপি চযে়ারম্যান এর পরবিাররে কমপক্ষে ১৫ জন সদস্যরে নামে ১০ টাকা দামরে চালরে র্কাড থাকার খবর।স্থানীয়ভাবে জানা গছে,ে ইউপি চযে়ারম্যান রযি়াজুল ইসলাম চঞ্চল এর আপন ও সৎ মলিে ৩জন মা, আপন দুই ভাই, বোন ভগ্নপিত, ভাইপো, চাচা, মামা, বযে়াই সহ ১৫ জনরে নামে র্কাডরে সন্ধান পাওয়া গছে। ইউপি চযে়ারম্যানরে মা রজিযি়া বগেম (ক্রমকি-৪১), নুরজাহান বগেম (ক্রমকি-৬২) ও রকেসোনা বগেমরে (ক্রমকি-৮০) নামে ভান্ডারীপাড়ার ১০ টাকা দামরে চালরে র্কাড রয়ছে।েএছাড়া বোন আইরনি (ক্রমকি-১০২) ও ভগ্নপিতি রওশন শখেরে (ক্রমকি-১০৩) নামে রয়ছেে আরো দুটি র্কাড। আপন ভাই কামরুজ্জামান এর নাম ১১ ও ৬০ ক্রমকিে দুই জায়গায় রয়ছে।ে অপর ভাই ঝন্নুর নামে ৪১৪ ক্রমকিে র্কাড রয়ছে। এখানইে শষে নয় চযে়ারম্যানরে ভাইপো সৌরভ আর বৌমা সুমীর নামে দু’টি র্কাড করা হয়ছে।ভান্ডারীপাড়ায় চযে়ারম্যানরে মামা মো. রবউিল ইসলাম (ক্রমকি-৮৫) ও ১০ টাকার র্কাডধারী। হবখালী গ্রামে চযে়ারম্যানরে বযে়াই আ. ওয়াদুদ মোল্যা (ক্রমকি-১৯৪) ও তার স্ত্রী তানজরিা (ক্রমকি-১০১) দুজনকইে দটো র্কাড করে দযে়া হয়ছে
মামাতো ভাই ইকবাল,জাহদি ও আরকে ভাই নাইমরে নামে রয়েেছে ১০ টাকা দামরে খাদ্যবান্ধব চালরে র্কাড।এছাড়া ভান্ডারীপাড়ার তামশো বগেম, শল্পিী সহ পঞ্চার্শোধ লোকরে নাম তালকিায় আছে যারা বহু আগইে গ্রাম ছডে়ে চলে গছেনে।
ভান্ডারীপাড়া কাজী তরকিুল যনিি প্রবাসে থাকনে, তার নামওে র্কাড রয়ছে। ইউনযি়ন পরষিদ সূত্রে জানা গছে, হবখালী ইউনযি়নে দু’টি ডলিাররে মাধ্যমে ৬’শ ১৮টি র্কাডরে মাধ্যমে হ*তদরদ্রিদরে ১০ টাকা দামরে চাল বতিরণ করা হয়ে থাক।ে এর মধ্যে ৩০৯ টি র্কাডে চাল বতিরণ হয় চযে়ারম্যানরে ভাইপো ডলিার মো. লংিকন রহমান এবং অপর ডলিার বাগডাঙ্গা বাজারে মো. জন্নিাহ মোল্যার এর মাধ্যম।ে প্রতনিযি়ত এসকল অনযি়ম হলওে তা দখেনে না তদারককারী র্কমর্কতা কংিবা খাদ্য বভিাগরে কউে।
ডলিার মোঃ লংিকন রহমান বলনে, আমি তো তালকিা করনিা, এটা চযে়ারম্যান মম্বেররা করনে। কউে না আসলে তার পক্ষরে কাউকে চাল দযি়ে দযে়া হয়। হবখালী ইউপি সচীব বষ্ণিুপদ সনে জানান, ইতোমধ্যে প্রশাসনরে পক্ষ থকেে তদন্ত সাপক্ষেে বভিন্নি অভযিোগরে ভত্তিতিে ৯১টি র্কাড সংশোধনরে জন্য বলা হয়ছে। মাঠ র্পযায়ে সসেব র্কাড সংশোধনরে কাজ চলছ।েচযে়ারম্যান রযি়াজুল ইসলাম চঞ্চলকে তার পরবিাররে এতগুলো লোকরে নামে খাদ্যবান্ধব র্কমসূচীর র্কাড হবার ব্যাপারে জানতে চাইলে তনিি বলনে, আগে কছিু ভুলত্রু*টি ছলিো তা সংশোধন করা হচ্ছ,ে তাছাড়া এরা সবাইতো গরীব। র্কমসূচীর তদারককারী র্কমর্কতা (উপ-সহকারী কৃষি র্কমর্কতা) বি এম জাহদি শাকলি বলনে, আমাকে একসাথে অনকেগুলো ফল্ডি দখেতে হয়, তাই সর্ম্পূন সময় থাকতে পারি না, আমি যতটুকু সময় থাকি সখোনে তো কোন অনযি়ম ধরা পড়ে না। তবে আগরে ডলিাররে বরিু*দ্ধে অফসিে অভযিোগ করছে।িহবখালী ইউনযি়নরে ১০ টাকা দামরে চালে এতসব অনযি়মরে ব্যাপারে জলো খাদ্য নযি়ন্ত্রক মনরিুল ইসলাম বলনে, একজন ডলিার বাতলি এবং অন্যজনকে কারণ র্দশানো এবং চযে়ারম্যানকে ও কারণ র্দশানোর কথা বলনে। বাস্তবে দুই ডলিাররে সাথে সরাসরি কথা বললে তারা শোকজ বা ডলিারশীপ বাতলিরে কোন পত্র পাননি বলে জানান। নড়াইলে জলো প্রশাসক আনজুমান আরা বলনে, মাঠ র্পযায়রে অনকে র্কাড এর ভুলত্রু*টি আমাদরে নজরে এসছে,ে মডিযি়া এক্ষত্রেে ভালো ভূমকিা রাখছ। জলো প্রশাসনরে পক্ষ থকেে সংশ্লষ্টি র্কমর্কতাদরে নর্দিশেনা দযে়া হয়ছেে সব র্কাডগুলো পুনরায় যাচাই এর জন্য। আশাকরি আগামীতে সমস্ত অনযি়ম সংশোধন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here