অভয়নগরে অন্ত:সত্ত্বা স্ত্রী ও শিশু হত্যার বিচারের দাবিতে মানববন্ধন ও স্মারকলিপি

0
152

এইচ এম জুয়েল রানা : অভয়নগরে অন্ত:সত্ত্বা স্ত্রী ও ৩ বছরের কন্যা হত্যার অভিযোগ করে মানববন্ধন করেছে এলাকাবাসী। বুধবার দুপরে যশোর – খুলনা মহাসড়কের উপজেলা পরিষদ এলাকায় এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধনে অংশগ্রহনকারি কয়েকজন জানান,স্বামী কনার মন্ডল তার অন্ত:সত্ত্বা স্ত্রী পিয়া মন্ডল (২৩) ও তিন বছরের কন্যা সন্তান কথা মন্ডলকে হত্যা করেছে। জানা গেছে, অভয়নগর উপজেলার পায়রা ইউনিয়নের দত্তগাতী গ্রামের ভগিরথ মন্ডলের মেয়ে পিয়া মন্ডলের সঙ্গে মণিরামপুর উপজেলার সুজতপুর গ্রামের ননি গোপাল মন্ডলের ছেলে মশিয়াহাটী ডিগ্রী কলেজের প্রভাষক কনার মন্ডলের বিয়ে হয়। তাদের অরসে জন্মগ্রহণ করে কন্যা কথা মন্ডল। বর্তমানে কথার বয়স তিন বছর। গত ৭ আগস্ট শনিবার আনুমানিক ৩ টার সময় কনার মন্ডলের বাসার রান্নাঘর থেকে অন্ত;সত্ত্বা স্ত্রী পিয়া ও কন্যা কথার ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার করে থানা পুলিশ। নিহতের পরিবার ও বক্তাদের অভিযোগ, প্রভাষক কনার মন্ডলের পরকীয়া প্রেমের বিষয়টি তার স্ত্রী পিয়া মন্ডল জেনে যায়। যে কারণে কনার মন্ডল পরিকল্পিতভাবে তার অন্ত:সত্ত্বা স্ত্রী ও তিন বছরের কন্যা সন্তানকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে। পরে হত্যাকান্ডকে আত্মহত্যায় পরিণত করতে গলায় ফাঁস দিয়ে মৃতদেহ দুটি রান্নাঘরে ঝুলিয়ে রাখেন। ঘাতক কনার মন্ডলকে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করেন তারা। মানববন্ধন শেষে ঘাতক কনার মন্ডলের শাস্তির দাবি জানিয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আমিনুর রহমান বরাবর স্মারকলিপি পেশ করা হয়। ঘন্টাব্যাপী চলা মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আক্তারুজ্জামান তারু, পায়রা ইউপি সদস্য সাইফুল ইসলাম, নিহতের আতী¥য় শিক্ষক শীতল কান্তি মন্ডল, ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ নেতা ফিরোজ আলম প্রমুখ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here