মণিরামপুরে রাস্তা সংস্কারের ৫০ হাজার টাকা আত্মসাৎ : প্রতিবাদ করায় লাঞ্চিত ঈমাম

0
191

স্টাফ রিপোর্টার : মণিরামপুর উপজেলার খেদাপাড়া ইউনিয়নের দিঘীরপাড় গ্রামে রাস্তা সংস্কার প্রজেক্টের ৫০ হাজার টাকা আত্মসাৎ করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। প্রতিবাদ করায় অর্থ আত্মসাৎ কারীর হাতে লাঞ্চিত হয়েছে স্থানীয় এক ঈমাম। জানা যায়, বিগত অর্থ বছরের জুন মাসে স্থানীয় সরকারের, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রনালয় থেকে উপজেলার খেদাপাড়া ইউনিয়নের দিঘীরপাড় গ্রামের জামতলা মোড় হইতে মহিলা দাখিল মাদ্রাসা হয়ে সবুরের দোকান মোড় পর্যন্ত রাস্তার মাটির কাজের জন্য ৫০ হাজার টাকা বরাদ্ধ দেন। ওই প্রজেক্টর সভাপতি ছিলেন ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি দিঘীরপাড় গ্রামের আব্দুল মমিন। সভাপতি ওই প্রজেক্টের টাকা উত্তোলন করার পরও রাস্তার কোন কাজ না করে সমস্ত টাকা আত্মসাৎ করেছে। কিছুদিন পুর্বে বিষয়টি জানাজানি হলে মাদ্রাসা পাড়া লোকের মধ্েয চরম ােভের জন্ম নেয়। একপর্যাযেে় স্থানীয়রা রাস্তার উপর প্রতিবাদী সমাবেশ করেন। এদিকে সমাবেশে থাকা ঐ মহিলা মাদ্রাসার মাওলানা শিক ও সরদার পাড়া জামে মসজিদের ঈমাম আবু হাসান ২৭ অক্টোম্বর সকালে বাড়ি থেকে খেদাপাড়া বাজারে যাওয়ার সময় সবুরের মোড়ে পৌঁছালে মমিনের ভাইপো লিটন ও হেলাল তাকে গতিরোধ করে। এবং তার কাছে জবাব চাই রাস্তার কাজ করুক বা না করুক তাতে তোর কি। বলেই ঈমামকে কিলঘুষি মারে ও তার মটরসাইকেলের চাবি নিয়ে নেয়। স্থানীয়রা থামিয়ে দিলে ঈমাম সেখান থেকে চলে যায়। এদিকে ঐ ঈমাম বিকেলে ওই মোড়ে গেলে প্রজেক্টের টাকা আত্মসাৎকারী মমিনসহ তার তিন ভাই ও ভাইপোরা তাকে আবারও লাঞ্চিত করে। বিষয়টি নিয়ে সরদার পাড়ার লোকজনেররা টাকা আত্মসাৎকারী মমিনের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া সহ ঈমামকে মারপিট করার প্রতিশোধ নেওয়ার উদ্েযাগ নেয়। এ বিষয়ে ঈমান হাসান জানান, আমাদের রাস্তার কাজ না করে মমিন ৫০ হাজার তুলে খেয়ে ফেলেছে। বিষয়টি নিয়ে আমরা পাড়ায় বসাবসি করি। তার পর আমি মোড়ে যায়। সেখানে মমিনসহ তিন ভাই ও তার ভাইপোরা আমাকে মারপিট করে। পরে আমার প্রতিবেশিরা সেখানে গেলে তারা বিভিন্ন প্রকারের হুমকি-ধামকি দেয়। বিষয়টি নিশ্চিত করে একই কথা বলেছেন ওই পাড়ার আজাদ, ওবাইদুল, আমির, হামজা, ইকরামুল, দিপু সহ অনেকেই জানিয়েছেন। তাদের একটাই দাবী রাস্তার মাটির কাজ পুরাটাই করতে হবে। নইলে আইনের আশ্রয় গ্রহন করবেন। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় মেম্বার এর কাছে জানতে চাইলে তিনি কোন কিছু বলতে রাজি নন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here