যশোরের চৌগাছা ঝিকরগাছায় তুচ্ছ ঘটনার মধ্য দিয়ে ভোট চলছে এক কেন্দ্র টিয়ার সেল গাড়ি ভাংচুর

0
105

যশোর প্রতিনিধি : যশোরের চৌগাছা উপজেলার ১১ টি ইউনিয়নের মধ্যে ৯টি ইউনিয়নে শান্তিপুর্ন ভাবে ভোট গ্রহন চলছে। ৮ নং হাকিমপুর নং৩ সিংহঝুলি ইউনিয়ন ২ন পাশাপোল ইউনিয়নে সকাল ৮টায় ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। এসব ভোট কেন্দ্র ঘুরে দেখা যায়, সকাল থেকেই ভোটকেন্দ্রে নারী-পুরুষ ভোটারদের উপস্থিতি ছিল ল্যনীয়। চৌগাছার পাশাপোল ইউনিয়নের ৬ নম্বর ওয়ার্ডের দশপাখিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের প্রিজাইডিং অফিসার মো. আবু তাহের বলেন, এখন পর্যন্ত শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট গ্রহণ হচ্ছে। সকালেই সকলকে সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট প্রদানের জন্যে সকলকে ব্রিফিং করা হয়েছে। তিনি জানান, আধাঘণ্টায় নারী ও পুরুষ দুই বুথে ৫০ জনের অধিক ভোট দিয়েছে। এই কেন্দ্রে ভোটারের সংখ্যা ১৫ শত ১২ জন। যার মধ্যে নারী ভোটার ৭৬০ ও পুরুষ ৭৫২ জন। এই ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে নৌকা প্রতীক নিয়ে লড়ছেন বর্তমান চেয়ারম্যান অবাইদুল ইসলাম সবুজ, চশমা প্রতিকে আব্দুল মতলেব ও আনারস প্রতিকে শাহিন রহমান- এই তিনজন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। ইউনিয়নের ৮ হাকিমপুর ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের মাঠ চাকলা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে শান্তিপূন ভোট গ্রহন হচ্ছে শান্তিপূর্ন ভাবে। হাকিমপুর ইউনিয়নের মোট ভোটার ১৮হাজারের উদ্ধে হবে। এইউনিয়নে বর্তমান চেয়ারম্যান স্বতন্ত্র প্রার্থী মাসুদুল হাসান আনারস প্রতীক নিয়ে নির্বাচন করছেন। আর নৌকা প্রতীক নিয়ে নির্বাচন করছেন, মামুন কবীর। মাঠ চাকলা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে নারী পুরুষ ভোটারদের দীর্ঘ লাইনে ৩টি বুথে ভোট গ্রহন হচ্ছে। কেন্দ্র প্রিজাইটিং অফিসার শাহজাহান বলেন, এখানে ১৯শত ৭৯ জন ভোটার। সকাল ৯টা২০ মিনিট পযন্ত২৫০জন জন নারী পুরুষ ভোট দিয়েছে।এখানে প্রথম নতুন নারী ভোটার জাকিয়া সুলতানা বলেন,প্রথম ভোট দিতে এসেছি। ভালো একজনকে ভোট দেবো। পুরুষ প্রথম ভোটার রানা বলেন, সত্যযোগ্য ব্যক্তিকে ভোট দেবো। যিনি উন্নয়ন করতে পারবেন। এ উপজেলার ১১টি ইউনিয়নের ৯টি ইউনিয়নে নির্বাচন হচ্ছে। বাকি ২টি ইউনিয়ন ১নং ফুলসারী ও ৫ন চৌগাছা সদর ইউনিয়নের নৌকার প্রতিদ্ধন্দি দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীরা বিনা প্রতিদ্ধন্দিতায় বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। দুুই কেন্দ্র অন্যান্য পদে ভোট চলছে। ১১টট ১০ মিনিটে চৌগাছা উপজেলার ৬ নং জগদীশপুর ইউনিয়নের মাড়ুয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের বাইরে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী তবিবর রহমান খান ও আওয়ামী লীগ বিদ্রোহী প্রার্থী আজাদ রহমান খান এর কর্মী সমর্থকেরা জড়ো হলে দায়িত্বপ্রাপ্ত ইন্সপেক্টর তাদের ছত্রভঙ্গ করার চেষ্টা করে। এ সময় উপস্থিত লোকজন পুলিশের উপর প্তি হয়ে পুলিশের ব্যবহৃত গাড়ির গ্লাস ভাংচুর করে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ ৬ রাউন্ড টিআর সেল নিপে করে। প্রায় দুইঘন্টা ভোট নেয়া বন্ধ থাকার পর বেলা ১টার দিকে আবার ভোট নেয়া শুরু হয়। তবে ভোটারদের উপস্হিতি কমে যায়। এছাড়া চৌগাছার অন্যান্য কেন্দ্রে তুচ্ছ কিছু ঘটনা ছাড়াই শান্তিপূর্ন ভাবে ভোট গ্রহন চলছে। এছাড়া ঝিকরগাছা শংকরপুর ইউনিয়নসহ কয়েকটি ইউনিয়নে কয়েকটি তুচ্ছ ঘটনার সংবাদ পাওয়া গেছে। চৌগাছা ও ঝিকরগাছায় ভোট চলাকালে ৪জনকে আটক করার সংবাদ পাওয়া গেছে। এরিপোর্ট লেখার আগ পযন্ত বেলা ৩টা পযন্ত শান্তিপূনভাবে ভোট দেয়ার খবর পাওয়া গেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here